চট্টগ্রাম, , শনিবার, ২২ জুন ২০২৪

admin

১ নভেম্বর থেকে ৪ দিনব্যাপী সুখছড়ী রাস মহোৎসবের হীরক জয়ন্তী উৎসব শুরু

প্রকাশ: ২০১৭-১১-০১ ০১:১৭:৩৫ || আপডেট: ২০১৭-১১-০১ ০১:১৭:৩৫

 

 

সুজন দাশ:

দক্ষিন চট্টগ্রামের ঐতিহ্যবাহী সুখছড়ী রাস মহোৎসবের হীরক জয়ন্তী উৎসব আগামী কাল পহেলা নভেম্ভর চার দিন ব্যাপী অনুষ্ঠান মালার মধ্য দিয়ে শুরু হতে যাচ্ছে।

উক্ত মহতী আয়োজনের ৬০ তম বর্ষে পদার্পন উপলক্ষ্যে চার দিন ব্যাপী নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

 

উক্ত মাঙ্গলিক অনুষ্ঠান মালার মধ্যে রয়েছে ১লা নভেম্ভর,  বুধবার, সকাল ১০ ঘটিকায় শ্রী শ্রী গীতা পাঠ প্রতিযোগীতা ও পুরষ্কার বিতরনী অনুষ্ঠান।

২ রা নভেম্ভর  বৃহস্পতিবার, সকাল ৯ ঘটিকায় অষ্টাদশ অধ্যায় গীতা পাঠ,  সন্ধ্যা ০৬ ঘটিকায়  মহতী ধর্ম সভা ও সন্ধ্যা ০৭ ঘটিকায়  বেতার টিভি শিল্পীর পরিবেশনায় ধর্মীয় সঙ্গীতাঞ্জলী।

৩রা নভেম্ভর শুক্রবার, উষালগ্নে অষ্টপ্রহরব্যাপী মহানামযজ্ঞের শুভ অধিবাস, যা দুদিনব্যাপী অহোরাত্র চলবে।

 

রাস মহোৎসব উদযাপন পরিষদের সম্মানিত সভাপতি শ্রী   সঞ্জীব  চৌধুরী ঝুলন এ বারের আয়োজন সম্পর্কে  জানতে চাইলে বলেন, হীরক জয়ন্তী উপলক্ষ্যে আমাদের এবারের আয়োজন হবো চার দিনের। দূর দূরান্ত  হতে আগত ভক্তগনের জন্য সবধরনের ব্যবস্থা থাকবে। গত বারের যে সীমাবদ্ধতা গুলো ছিলো তা দূর করা হয়েছে।  হরিনাম সংকীর্তনে বিপুল সংখ্যক ভক্তের আগমন হবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

 

বর্তমান কার্যকরী পরিষদের সম্পাদক শ্রী বিশ্বজিৎ বিশ্বাস বলেন, আমাদের পুরোনো মন্দির ভেঙে এবছর নতুন মন্দিরে নতুন আঙ্গিকে উৎসবের আয়োজন হতে যাচ্ছে।

সাজসজ্জায় ও নতুনত্ব আনা হয়েছে।

ভক্তগনের বসার জায়গা বর্ধিত হওয়ার এখন আর কোন সমস্যা হবে না।

 

সুখছড়ী কালী মন্দির পরিচালনা কমিটির সাঃসম্পাদক রিটন কান্তি দাশ বলেন, এ বারের হীরক জয়ন্তীর আয়োজন সফল ও সুন্দর করার জন্য সব ধরনের আয়োজন সম্পন্ন করা হয়েছে আশা রাখছি আগত কৃষ্ণ ভক্তদের কাছে আমরা একটি সুন্দর উৎসব উপহার দিতে পারবো।

সরজমিন পরিদর্শনে দেখা যায় সুখছড়ী গ্রামে এখন সাজ সাজ রব, আলোক সজ্জায় চারিদিক রঙিন হয়ে উঠেছে। মন্দির প্রাঙ্গনে চলছে শেষ মুহুর্তের প্রস্তুতি। অনুষ্ঠান মঞ্চ, প্রতিমা প্রদর্শনী, ভক্তগনের ভোজন ব্যাবস্থা সব কাজ  আজকের মধ্যে শেষ করা

চাই -ই -চাই।

রাসে ঐতিহ্য সুখছড়ী সনাতনী সমাজের অহংকার। এ অহংকা সমুন্নত রাখার জন্য সকলের প্রচেষ্টা প্রসংসার দাবী রাখে বলা যায়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *