চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ২৭ অক্টোবর ২০২০

আব্দুল্লাহ মনির, টেকনাফ(কক্সবাজার) প্রতিনিধি

টেকনাফে র‌্যাবের সাথে বন্দুকযুদ্ধে’ ২ রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত

প্রকাশ: ২০২০-০৩-১২ ০৯:২৯:০৪ || আপডেট: ২০২০-০৩-১২ ০৯:২৯:১১

আব্দুল্লাহ মনির, টেকনাফ :

টেকনাফ বাহারছড়া মেরিন ড্রাইভ সংলগ্ন সমুদ্র সৈকত এলাকায় র‌্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ জকির গ্রুপের সক্রিয় ২ রোহিঙ্গা ডাকাত নিহত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১২টা দিকে কক্সবাজার-টেকনাফ বাহারছড়া মেরিন ড্রাইভ সংলগ্ন সমুদ্র সৈকত এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় র‌্যাবের তিন সদস্য আহত হয়। আহতরা হলেন, হাবিলদার খাইরুল, এ,এস, মাহি আবু কায়সার, সার্জেন হুমায়ুন।

নিহতরা হলেন- হ্নীলা ইউনিয়নের লেদা পশ্চিম পাড়ার এলাকার নুর আহমদের ছেলে নুর কামাল (৩৫) প্রকাশ সোনায়া ডাকাত, কক্সবাজারের খরুলিয়া জুনু মাতবর এলাকার আবদুস শুক্কুরের ছেলে মোঃ সাইফুল ইসলাম (৩৪) প্রকাশ ডিবি সাইফুল। তারা ২জন চিহ্নিত সন্ত্রাসী জকির গ্রুপে সক্রিয় সদস্য বলে দাবি র‌্যাবের।

র‌্যাব-১৫ সিপিসি-১ টেকনাফ ক্যাম্পের ইনচার্জ লে. মির্জা শাহেদ মাহতাব এক্স বিএন জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে রাত সাড়ে ১২ টায় দিকে টেকনাফ উপজেলার বাহারছড়া মেরিন ড্রাইভ সংলগ্ন সমুদ্র সৈকত এলাকায় ডাকাত জকির গ্রুপের সদস্য সংঘবদ্ধভাবে ডাকাতি করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন। এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাবের একটি দল ওই এলাকায় অভিযানে গেলে।

এসময় অস্ত্রধারী ডাকাত দলের সদস্যরা র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে তাদেরকে লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলি চালায়। আত্মরক্ষার্থে র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালায়। বেশ কিছুক্ষণ গুলি বিনিময়ের হয় পর কুখ্যাত ডাকাত জকির গ্রুপের সদস্যরা পালিয়ে যায়।

 পরে ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশী পিস্তল, একটি ম্যাগজিন, ৬ রাউন্ড গুলি, একটি একনলা বন্দুক ও ৫ রাউন্ড তাজা কার্তুজ, দুটি খালি খোসাসহ নুর কামাল ও মোঃ সাইফুলকে উদ্ধার করে টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে জরুরী বিভাগের চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন।

র‌্যাবের কর্মকর্তা আরও জানান,লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এবং অপরাধী যেই হোক না কেন আমাদের হাত থেকে রক্ষা পাবে না। আমাদের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *