চট্টগ্রাম, , রোববার, ১ আগস্ট ২০২১

খলিল চৌধুরী সৌদি আরব প্রতিনিধি

মদিনা সিটির অধিকাংশ এলাকা আজ থেকে অনির্দিষ্টকালের জন্য কারফিউ

প্রকাশ: ২০২০-০৩-২৮ ১৯:১০:৪২ || আপডেট: ২০২০-০৩-২৮ ১৯:১০:৪৬

খলিল চৌধুরী, সৌদি আরব প্রতিনিধি-

সৌদি আরবের পবিত্র মদিনা সিটির অধিকাংশ এলাকা আজ ২৮-মার্চ থেকে আগামী ১৫-দিনের জন্য লক-ডাউন ঘোষনা করেছে।
মদিনা সিটির আওতাধীন এলাকা গুলো হচ্ছেন, আস শুরাইবাত, বনী যুফার, কুরবান, আল জুময়া, আল ইসকান, বানী খুদরা আজ ২৮ মার্চ ভোর ছয়টা হতে পরবর্তী নির্দেশ না না দেয়া পর্যন্ত ( হতে পারে সেটা আগামী পনের দিনের জন্য) পূর্ণকালীন (২৪ ঘন্টা ব্যাপী) লক ডাউনের নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। এ এলাকাগুলো হতে বের হওয়া বা এ এলাকা সমুহে প্রবেশ করা সম্পূর্ণরুপে নিষিদ্ধ থাকবে।

এসময় এ এলাকা সমুহে বাড়ি হতে বের হওয়া সম্পূর্ণরুপে নিষিদ্ধ থাকবে। তবে একান্ত জরুরী চিকিৎসা সেবা ও জরুরী খাদ্যদ্রব্য কেনাকাটার জন্য এই এলাকার ভেতরে অত্যন্ত নিয়ন্ত্রিতভাবে বের হওয়া যাবে।

সৌদিআরবে কারফিউউ জারি করার পর ৪-দিনের মধ্যে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা ক্রমান্বয়ে ফলপ্রসূভাবে কমে যাচ্ছে।
কারফিউর ১ম দিনে রোগী: ২০৫ জন, কারফিউর ২য় দিনে রোগী: ১৩৩ জন, কারফিউর ৩য় দিনে রোগী: ১১২ জন, কারফিউর ৪র্থ দিনে রোগী: ৯২ জন
এদের মধ্যে ৩৩-জন সুস্থত হয়ে বাড়িতে ফিরলেও একজন সৌদি-নাগরিক সহ তিনজনের মৃত্যু হয়েছে।

বিশ্বজুড়ে ছড়িয়ে পড়া আতংকের এক নাম প্রাণঘাতী রোগ করোনাভাইরাস। এ করোনা থেকে রক্ষা পাইনি মধ্যপ্রাচ্য দেশ সৌদি আরব। প্রতিদিন হু-হু করে বাড়ছে এ রোগ। শত শত মানুষ এ মরণব্যধি রোগ করোনাভাইরাস আক্রান্ত হচ্ছে।

করোনা ভাইরাস বিস্তার ঠেকাতে পুরো সৌদি আরব জুড়ে গত ২৩-মার্চ ২১-দিনের জন্য সন্ধা ৬-টা থেকে সকাল ৬-টা পর্যন্ত বিশেষ কারফিউ জারি করে।
আজ ২৫-মার্চ তৃতীয় দিন চলছে।

হুহু করে এ করোনাভাইরাস বেড়ে যাওয়ায় সৌদি আরবে চলমান ২১ দিনের কারফিউর তৃতীয় দিনে রাজধানী রিয়াদ, মক্কা ও মদিনায় সন্ধ্যা ৭ টার পরিবর্ত করে বিকেল তিনটা থেকে শুরু হয়ে সকাল ছয়টা পর্যন্ত কারফিউ চলবে-
আরব নিউজ-সহ সৌদির বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়।

এ কারফিউ চলাকালীন সময়ে কাউকে ঘর থেকে বের না হতে অনুরোধ জানানো হয়েছে, এছাড়া সৌদির অন্যান্য শহরে আগের নিয়মে সন্ধ্যা ৭ টা হতে সকাল ছয়টা পর্যন্ত কারপিউ বহাল থাকবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *