চট্টগ্রাম, , সোমবার, ২৬ অক্টোবর ২০২০

ফারুক খান তুহিন

বঙ্গবন্ধুর খুনের বিষয়ে ফেইসবুকে স্ট্যাটাস দেয়ায় ছাত্রী বহিষ্কার

প্রকাশ: ২০২০-০৪-০৭ ২১:৪৬:১৪ || আপডেট: ২০২০-০৪-০৭ ২১:৪৬:১৭

ডেস্ক নিউজ, বীর কন্ঠ :

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হত্যার বিচারকে ‘কাসুন্দি ঘাটা’ বলায় ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই ছাত্রীকে সাময়িক বহিষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। ওই ছাত্রীর নাম তানজিদা সুলতানা ছন্দ। তিনি বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী।

মঙ্গলবার (৭ এপ্রলি) রাত ৯টার দিকে উপাচার্যের বাসভবনে অনুষ্ঠিত এক জরুরি সভায় ওই ছাত্রীকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়েছে। একই সঙ্গে এ ঘটনা তদন্তের জন্য তিন সদস্যের একটি কমিটি করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক হারুন উর রশিদ আসকারী।

তদন্ত কমিটিতে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর অধ্যাপক পরেশ চন্দ্র বর্ম্মণকে আহ্বায়ক করা হয়েছে। কমিটির অন্য সদস্যরা হলেন আইন বিভাগের অধ্যাপক রেহানা পারভীন এবং পরিসংখ্যান বিভাগের সভাপতি ড. সাজ্জাদ হোসেন। কমিটিকে সাত কার্যদিবসের মধ্যে প্রতিবেদন জমা দিতে বলা হয়েছে।

ক্যাম্পাস সূত্রে জানা গেছে, বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক কর্মী সাজ্জাদ হোসেন তার ফেসবুকে বঙ্গবন্ধু হত্যার আত্মস্বীকৃত খুনি মাজেদ গ্রেফতারের পর একটি পোস্ট দেন। সেই পোস্টে ওই ছাত্রী লিখেছেন ‘শেখ মুজিব যদি খুন না হত তাহলে কী সে এখনো পর্যন্ত বেঁচে থাকতো? মুজিবুর রহমান অনেক বয়স পরই মারা গেছেন। কিন্তু আমরা আদিখ্যেতা জাতি একজনের খুনের বিচার করতে করতে ভুলেই যাই প্রতিদিন কতশত মানুষ আমাদের আশপাশে খুন হচ্ছে, গুম হচ্ছে। আমরা পুরাতন কাসুন্দি নিয়ে খুব বেশি ঘাটাঘাটি করতে পছন্দ করি।’

এমন মন্তব্যের পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছাত্রলীগের সাবেক ও বর্তমান নেতাকর্মীরা ওই ছাত্রীকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কারের দাবি জানিয়েছেন ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *