চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর ২০২০

খলিল চৌধুরী সৌদি আরব প্রতিনিধি

সমগ্র সৌদি আরবে জুড়ে অনির্দিষ্টকালের জন্য ২৪ ঘণ্টা কারফিউ

প্রকাশ: ২০২০-০৪-০৭ ২০:৪৫:১৫ || আপডেট: ২০২০-০৪-০৭ ২০:৪৫:১৯

খলিল চৌধুরী, সৌদি আরব প্রতিনিধি- মরণব্যধি করোনাভাইরাসের কারণে সৌদি আরবের ছোট কয়েকটি শহর ছাড়া রিয়াদ, জেদ্দা, দাম্মাম, তাবুকসহ পুরো সৌদি জুড়ে অনির্দিষ্টকালের জন্য ২৪ ঘণ্টা কারফিউ ঘোষণা করা হয়েছে। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এ সিদ্ধান্ত গণমাধ্যমকে জানিয়েছে সৌদি প্রেস এজেন্সি। সৌদি প্রেস এজেন্সি(এসপিএ)’র বরাত দিয়ে স্থানীয় পত্রিকা ও টেলিভিশনে কারফিউ খবর প্রচার করে যাচ্ছে। জারিকৃত কারফিউর আওতায় রয়েছে- রাজধানী রিয়াদ, বন্দরনগরী জেদ্দা, শিল্পনগরী দাম্মাম, তাবুক, দাহরান, কাতিফ আল- খোবার, হাফুফ এবং তায়েফ প্রদেশ। এরআগে পবিত্র নগরী মক্কা এবং মদিনায় অনির্দিষ্টকালের জন্য কারফিউ জারি করা হয়েছিল। নতুন সিদ্ধান্ত অনুযায়ী উল্লেখিত শহরগুলোতে এবং উল্লেখিত প্রদেশগুলোর সম্পূর্ণ এলাকাতেই ২৪ ঘণ্টা কারফিউ জারি থাকবে। জরুরি প্রয়োজন ছাড়া দিনের কোন সময়ে কেউ বাড়ি থেকে বের হতে পারবেন না। তবে যারা জরুরি পেশায় যুক্ত রয়েছেন তারা এই কারফিউয়ের আওতার বাইরে থাকবেন। সূত্র বলছে, সৌদি সরকার রমজান মাসের মধ্যেই বর্তমান করোনাভাইরাস জনিত সমস্যা থেকে বের হতে চাচ্ছে, কারণ সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে এবং পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলে জুলাই মাসের শেষ দিকে পালিত হবে পবিত্র হজ। যার কারণে সৌদি সরকারের দেশজুড়ে ২৪ ঘণ্টা কারফিউ জারি করেছেন। সৌদি প্রেস এজেন্সি আরও জানিয়েছে, কারফিউ চলাকালে স্থানীয় এবং প্রবাসী নাগরিকগণ ঘরে অবস্থান করবেন, একান্ত প্রয়োজন ছাড়া ঘর থেকে বাহির হওয়া যাবে না। বিশেষ প্রয়োজন ও পেশাগত প্রয়োজনে শুধুমাত্র প্রাপ্তবয়স্করা স্থানীয় সময় সকাল ছয়টা থেকে বিকাল তিনটা পর্যন্ত নিকটস্থ গ্রোসারি শপ, ফার্মেসি ,ফিলিং স্টেশন, ব্যাংক, সার্ভিস এন্ড মেইনটেনেন্স প্রতিষ্ঠানগুলো, প্লাম্বিং, ইলেকট্রিক, এসি টেকনিশিয়ান প্রতিষ্ঠান, গ্যাস স্টেশন এবং পানি বিষয়ক কোম্পানিগুলোতে যেতে পারবে। কারণ উল্লেখিত প্রতিষ্ঠান ছাড়া সকল প্রকার ব্যবসায়িক কার্যক্রম নিষিদ্ধ থাকবে। গতকাল ৬ এপ্রিল পর্যন্ত সৌদি আরবে ২৫২৩ জন করোনা ভাইরাস আক্রান্ত হয়েছে । সাতজন প্রবাসী বাংলাদেশিসহ করোনা ভাইরাসে মৃত্যুবরণ করেছে ৩৮ জন এখন পর্যন্ত সুস্থ হয়ে ঘরে ফিরেছেন ৫৫১ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *