চট্টগ্রাম, , সোমবার, ১৪ জুন ২০২১

শফকত হোসাইন চাটগামী বাঁশখালী প্রতিনিধি

বাঁশখালীর সরলে র‌্যাবের অভিযানের পর গ্রামবাসীদের উপর সন্ত্রাসী হামলা

প্রকাশ: ২০২০-০৪-২৫ ২০:০৩:০৫ || আপডেট: ২০২০-০৪-২৫ ২০:০৩:০৭

শফকত হোসাইন চাটগামী, বাঁশখালী :

বাঁশখালী উপজেলার সরল ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের হাজীরখীল গ্রামে র‌্যাব-৭ এর একটি টিম দাগী সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারে অভিযান চালিয়ে যাওয়ার পর গ্রামবাসীদের উপর সন্ত্রাসী হামলা, ভাংচুর ও লুটপাটের চালানোর অভিযোগ উঠেছে। গত (২৩ এপ্রিল) বৃহস্পতিবার সকালে ২০-৩০ জনের একটি দুর্বৃত্তের দল এ হামলা চালিয়েছে বলে জানান স্থানীয়রা। এতে ৬ বসতবাড়ীর মূল্যবান আসবাবপত্র ভাংচুর ও স্বর্ণালংকার লুটপাট করে প্রায় ৬ লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি করে দুর্বৃত্তের দল। এ ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের পক্ষ থেকে বাঁশখালী থানায় মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার সরল ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের হাজীরখীল গ্রামে দাগী চি‎হ্নিত সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারে অভিযান চালায় র‌্যাব-৭ এর একটি টিম। তারা অভিযান চালিয়ে যাওয়ার পরপরই সম্প্রতি র‌্যাবের ক্রসফায়ারে নিহত জাফর মেম্বারের অনুসারী মোরশেদ ও কাদেরের নেতৃত্বে ২০-৩০ জনের একটি সন্ত্রাসী দল দা, কিরিচ ও বন্দুক নিয়ে বসতবাড়ী ও গ্রামবাসীর ওপর হামলা চালায়। হামলাকারীরা ওই এলাকার মফিজুর রহমানের পুত্র কবির আহমদ, আবদুর রহিমের পুত্র আবছার, শমশুল ইসলামের নুর মোহাম্মদ, ছিদ্দিক আহমদের পুত্র আবদু শুক্কুর, মাহামুদুল ইসলাম ও আবু বক্করের পুত্র জাকের উল্লাহর বসতবাড়ীতে হামলা চালিয়ে মূল্যবান আসবাবপত্র ভাংচুর ও লুটপাট চালায়। এ সময় সন্ত্রাসীদের হামলায় আহমদ মিয়ার পুত্র নুরু (২৮), আবছারের স্ত্রী শারমিন আক্তার (২৫), ছিদ্দিক আহমদের স্ত্রী রাশেদা বেগম (৩০), জাকের উল্লাহর পুত্র খোরশেদ (১৫) ও মফিজুর রহমানের পুত্র কবির আহমদ (৪৫)সহ কমপক্ষে ১০ জন আহত হয়েছে। আহতদেরকে হাসপাতালে আনতেও বাঁধা প্রদান করে সন্ত্রাসীরা। আহত শারমিন আক্তার স্থানীয় সংবাদকর্মীদের জানান, ‘সন্ত্রাসীরা আমাদের বসতঘরে হামলা চালিয়ে গৃহ পালিত পশু, মূল্যবান জিনিসপত্র ও গোলার ধানও নিয়ে গেছে। তিনি আরো জানান, সম্প্রতি র‌্যাবের ক্রসফায়ারে নিহত জাফর মেম্বারের অনুসারী মোরশেদ ও কাদেরের নেতৃত্বেই এই হামলা চালানো হয়।’ বাঁশখালী থানা অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. রেজাউল করিম মজুমদার জানান, ‘সরলে হামলার ঘটনা অভিযোগের প্রেক্ষিতে তদন্ত পূর্বক আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *