চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ১৪ জুলাই ২০২০

কাইছার হামিদ

রকি বড়ুয়াসহ ৮ জনের বিরুদ্ধে পাঁচলাইশ থানায় ৪ মামলা

প্রকাশ: ২০২০-০৫-১৩ ২১:৫১:৫৬ || আপডেট: ২০২০-০৫-১৩ ২১:৫২:০২

সন্ত্রাস বিরোধী কার্যকলাপে যুক্ত থাকার অপরাধে লোহাগাড়ার রকি বড়ুয়াসহ ৮ জনের বিরুদ্ধে পাঁচলাইশ থানায় ৪ টি মামলা দায়ের করেছে র‌্যাব।  বুধবার (১৩ মে) সকালে র‌্যাব-৭ এর পরিদর্শক মো. রুপ মিয়া বাদি হয়ে মামলাগুলো করেন।

মামলার আসামিরা হলো- লোহাগাড়ার রকি বড়ুয়া (৪০), সফিউল আজম শহিদ (৪০), সাতকানিয়ার সগির আহমদ চৌধুরী (৪০), রাঙ্গুনিয়ার রুবেল বড়ুয়া নয়ন (২৭), ফেনীর সাইফুল ইসলাম প্রকাশ নয়ন (৩৮), লোহাগাড়ার নারায়ন মল্লিক (৩৪), নারায়ণগঞ্জের শাহরিনা ইসলাম প্রিয়া প্রকাশ আমেনা (২৪) ও সিরাজ (৩০)। এর মধ্যে সিরাজ পলাতক রয়েছে। বাকী আসামিরা গ্রেফতার আছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পাঁচলাইশ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আবুল কাশেম ভূঁইয়া।

গত ১ এপ্রিল  কারাবন্দি দেলোয়ার হোসেন সাইদীকে মুক্ত করার জন্য তার পুত্র মাসুদ সাইদী ও সাইদী সমর্থক ইসলামী বক্তা তারেক মনোয়ারকে সাথে নিয়ে লোহাগাড়ায় বৈঠক করেন রকি বড়ুয়া। বিষয়টি জানাজানি হলে র‌্যাব-৭ গত ১২ মে পাঁচলাইশ থানাধীন মোবারক রোডে অভিযান চালিয়ে রকি বড়ুয়াসহ ৭ জনকে গ্রেফতার করেন। পরবর্তীতে রকি বড়ুয়াকে প্রচুর জিঙ্গাসাবাদ করা হয় এবং বিদেশি মদ ও অস্ত্র উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ সূত্র জানায়, রকি বড়ুয়া একজন বিতর্কিত লোক। তার বিরুদ্ধে প্রচুর অভিযোগ রয়েছে। সর্বশেষ লোহাগাড়ার বৈঠকের বিষয়টি নজরে আসলে সরকারি নির্দেশে তাকেসহ তার সাঙ্গপাঙ্গকে গ্রেফতার করে র‌্যাব-৭। পুলিশ সূত্র আরও জানা যায়, অভিযান পরিচালনার সময় রকি বড়ুয়া ভবনের ছাদ থেকে লাপ দিলে তার পা মসকে যায়। যার কারণে সে বর্তমানে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন।

পাঁচলাইশ থানার ওসি আবুল কাশেম ভুঁইয়া বলেন, সন্ত্রাস বিরোধী কার্যকলাপে লিপ্ত থাকার অপরাধে গ্রেফতার রকি বড়ুয়াসহ ৭ জনকে পাঁচলাইশ থানায় হাজির করে ৪ টি মামলা দায়ের করে র‌্যাব-৭। মামলাগুলো আমলে নেয়া হয়েছে। রকি বড়ুয়া ছাড়া বাকিদের আদালতে প্রেরণের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। রকি বড়ুয়া চিকিৎসাধীন রয়েছে।

মাদক, অস্ত্র, প্রতারণা ও সন্ত্রাস বিরোধী আইনে মামলাগুলো করা হয়েছে বলে জানান ওসি আবুল কাশেম ভুঁইয়া।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *