চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ২১ জুন ২০২২

admin

লোহাগাড়ায় আসামির দায়ের কোপে পুলিশ সদস্যের হাতের কব্জি বিচ্ছিন্ন

প্রকাশ: ২০২২-০৫-১৫ ১৫:৪১:০৩ || আপডেট: ২০২২-০৫-১৫ ১৫:৪১:০৫

লোহাগাড়া(চট্টগ্রাম) প্রতিনিধি|
লোহাগাড়ায় আসামী ধরতে গিয়ে আসামির ধারালো দায়ের কোপে বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে পুলিশ কনস্টেবলের হাতের কব্জি। গুরুতর আহত পুলিশ কনস্টেবল জনি খান(২৮)কে চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

রোববার (১৫ মে) সকাল ১০টায় এ ঘটনা ঘটে। আসামী কবির আহমদ পলাতক রয়েছে।

জানা গেছে, পদুয়া ইউনিয়নের লালারখিল এলাকার মৃত আলী হোসেনের পুত্র একাধিক মামলার আসামী কবির আহমদ (৩৫) কে গ্রেফতার করতে লোহাগাড়া থানার এস আই ভক্ত চন্দ্র দত্ত, এ এস আই মজিবুর রহমান, কনস্টেবল জনি খান ও শাহাদাত হোসেন পুলিশ পিকআপ যোগে ঘটনাস্থলে যায়। আসামীর বাড়ি ঘেরাও করে। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে কবির আহমদ তার বাহিনীকে খবর দেয়। এ সময় কবির আহমদ গ্রেফতার এড়াতে ধারালো দা দিয়ে পুলিশ সদস্যের হাতে আঘাত করে পালিয়ে যায়। ঘটনাস্থলেই কনস্টেবল জনির হাতের কব্জি বিছিন্ন হয়ে যায়। কনস্টেবল মো. জনি ছাড়াও কনস্টেবল শাহাদত হোসেন (২৭) ও স্থানীয় আবুল কাশেম (৪০)ও গুরুতর আহত হন।

আহতদের উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য চমেক হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এলাকাবাসী জানায়, কবির আহমদ ইতোপূর্বেও একাধিক অপরাধ সংঘটিত করেছে। সে এলাকায় বেপরোয়া ও দুর্ধর্ষ হিসেবে পরিচিত।

লোহাগাড়া থানার ওসি আতিকুর রহমান এ ব্যাপারে লিখিতভাবে চট্টগ্রাম জেলা পুলিশ সুপারকে (বিশেষ শাখা) জানিয়েছেন বলে জানান।

এদিকে খবর পেয়ে সাতকানিয়া সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শিবলী নোমান ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। তিনি জানান, ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তারের প্রচেষ্টা চলছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *