চট্টগ্রাম, , রোববার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১

admin

রোহিঙ্গাদের ফিরে যাওয়া ঠেকাতে পরিকল্পিত হামলা মিয়ানমার সেনাবাহিনীর

প্রকাশ: ২০১৭-১০-১১ ১৬:৫৯:১৯ || আপডেট: ২০১৭-১০-১১ ১৬:৫৯:১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :  মিয়ানমারের রাখাইনে সামরিক অভিযানের মুখে পালানো রোহিঙ্গারা যাতে সেখানে ফিরতে না পারে সেজন্য সুসংগঠিত, সমন্বিত ও পরিকল্পিত হামলা চালাচ্ছে দেশটির সেনাবাহিনঅ। বুধবার জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশনের এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

 

গত এক মাসে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সাক্ষাৎকারের ভিত্তিতে জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশনের এই প্রতিবেদন তৈরি করা হয়েছে। ২৫ আগস্ট রাখাইনে সেনাবাহিনীর ক্লিয়ারেন্স অভিযান জোরদার হওয়ার পর এসব রোহিঙ্গা পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে। জাতিসংঘ সেনাবাহিনীর এই অভিযানকে জাতিগত নিধনযজ্ঞ হিসেবে আখ্যায়িত করেছে। অভিযানে অংশ নেওয়া সেনা সদস্যদের বিরুদ্ধে বিচারবহির্ভূত হত্যা, নির্যাতন এবং নারীদের ধর্ষণের অভিযোগ তুলেছে জাতিসংঘসহ বিভিন্ন আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংগঠন। এ অভিযানে বাংলাদেশে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের সংখ্যা ৫ লাখ ২০ হাজার ছাড়িয়ে গেছে।

 

জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশনের প্রধান জেইদ রা’দ আল-হুসেইন এক বিবৃতিতে বলেছেন, মিয়ানমারের সেনাবাহিনীর এই অভিযান জোরপূর্বক বিশাল সংখ্যক মানুষকে উৎখাত করা এবং যাতে করে তারা ফিরে আসতে না পারে।

 

জেনেভা থেকে জাতিসংঘের মানবাধিকার কমিশনের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, বিশ্বাসযোগ্য তথ্য ইঙ্গিত দেয় মিয়ানমারের সেনাবাহিনী উদ্দেশ্যমূলকভাবে রোহিঙ্গাদের সম্পত্তি ধ্বংস করছে, ঘরবাড়ি ও পুরো গ্রাম পুড়িয়ে দিয়েছে। এর মধ্য দিয়ে শুধু রোহিঙ্গাদের উৎখাত করতে নয়, যাতে করে তারা আর ফিরে আসতে না পারে তা নিশ্চিত করতেই সেনাবাহিনী এই কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে।  সূত্র: আল জাজিরা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *