চট্টগ্রাম, , বুধবার, ১২ মে ২০২১

admin

হাটহাজারীতে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ, গুরুতর আহত ৮

প্রকাশ: ২০২০-০৫-১০ ১৪:২১:১৬ || আপডেট: ২০২০-০৫-১০ ১৪:২১:২২

হাটহাজারী প্রতিনিধি■
হাটহাজারীতে এক রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে উভয়পক্ষের ৮ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এতে গুরুতর আহত হয়ে চমেক হাসপাতালে মো. মিজান (২৫) ও ইসমাঈল (১৭) ভর্তি হয়ে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

গত শুক্রবার (৮ মে) তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে জুমার নামাজের পূর্বে উপজেলা পৌরসভার ৭ নস্বর ওয়ার্ডে সরকারি ভূমিহীন আদর্শগ্রামে আদর্শগ্রাম জামে মসজিদের মাঠে এ ঘটনা ঘটে।

গত দীর্ঘ ৫ মাসে আদর্শগ্রামে একেরপর এক সন্ত্রাসি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটলেও কোন সন্ত্রাসি গ্রেপ্তার না হওয়াতে দিনদিন ওই এলাকার আইনশৃঙ্খলার অবনতি ঘটছে বলে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয় একাধিক ব্যক্তি জানিয়েছেন। সংঘর্ষের ঘটনায় আজ শনিবার (৯ মে) হাটহাজারী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে থানা সূত্র জানিয়েছে।

জানা যায়, গতকাল শুক্রবার সকালে সিএনজি অটোরিক্সায় সিরিয়ালে বসা দু’জন যাত্রীকে কিশোর গ্যাং নেতা রুবেল নামের এক চালককে জোর করে নামিয়ে তার গাড়িতে উঠাতে চায়। এমন অবস্থায় সিরিয়ালে থাকা সিএজি টেক্সির চালক এনাম প্রতিবাদ করে তার গাড়ির যাত্রীদের নামাতে বাধা দিলে রুবেল তাকে লাথি ও কিল-ঘুষি দেয়। এতে এনাম মাটিতে পড়ে যায়। কিন্তু এনাম কোন প্রতিবাদ না করলেও এ সময় আহমদ লেদু নামের অন্য এক চালক প্রতিবাদ করলে রুবেল তার উপর ক্ষিপ্ত হয়।

পরে রুবেল হাটহাজারী মাদরাসার সামনে সিএনজি স্টেশন থেকে বাড়িতে এসে লেদুকে মুঠোফোন কল দিয়ে বিভিন্ন গালিগালাজ ওহুমকি দেয়। একপর্যায়ে লেদু এলাকায় আসলে রুবেল লেদুর সাথে ঝগড়ায় লিপ্ত হয়। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে আধিপত্য বিস্তাার ঘটাতে রুবেল এলাকার সন্ত্রাসী কিশোর গ্যাংয়ের সদস্যদের খবর দিলে জুমার নামাজের আগমুহুর্তে আদর্শ গ্রাম মসজিদের পাশে দেশীয় অস্ত্র, কিরিচ, রামদা, হকস্টিক ও লোহার রড নিয়ে কিশোর গ্যাংয়ের একদল সশস্ত্র লোক অপেক্ষায় থাকে। এ সময় লেদু নামাজে আসার পথে তার উপর অতর্কিত হামলা চালায় তারা।

ঘটনার সময় মসজিদে থাকা লেদুর দু্ই ছেলে নাজিম ও মিজান দ্রুত বেরিয়ে তাদের বাবাকে উদ্ধার করতে ছুটে আসলে তাদের ‍উপরও হামলা করে সন্ত্রাসীরা। সন্ত্রাসীরা লেদুর ছেলে মিজানের হাতে কিরিচের কোপ দেয় এবং তার ছোট ভাই ইসমাঈলকে লোহার রড নিয়ে আঘাত করে। এতে দুই টুকরো হয়ে যায় তার বাম হাত। গুরুতর আহত হয় লেদু ও তার অপর ছেলে নাজিম।
এদিকে, হামলার সময় ধাক্কাধাক্কির আঘাতে সিএনজি চালক রুবেল (২৫), কিশোর গ্যাংয়ের ইকবাল ( ২৬), মনছুর(২৯), ভুট্টু (২৭) আহত হয়। তার মধ্যে মনছুর গুরুতর আহত হয়ে নগরীর চমেকে চিকিৎসাধীন আছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ব্যক্তিরা জানান, গত ৫ মাসে গত ৫ মাসে আদর্শগ্রামে ডজনেরও অধিক সন্ত্রাসমূলক ঘটনা ঘটায় একটি চিহ্নিত সন্ত্রাসী চক্র। আধিপত্য বিস্তার ঘটাতে আদর্শগ্রাম এলাকায় ক্ষমতাসীন দলের নাম ভাঙ্গিয়ে যুবলীগ নামধারী কিছু চিহ্নিত উশৃঙ্খল কর্মী গ্রামে যেকোন ঘটনার ইস্যু নিয়ে হামলা চালিয়ে তাদের প্রভাব বিস্তার করার লক্ষ্যে সন্ত্রাসি ঘটনায় জড়িয়ে পড়ে।

অপরদিকে, শেখ রাসেল সংগঠনের নাম দিয়ে কিশোর গ্যাংয়ের কিছু অল্পবয়সী ছেলেরাও এসব ঘটনাতে জড়িয়ে যায়। রাতে ছিনতাইসহ নানা অপকর্মে কিশোর গ্যাংয়ের ছেলেরা স্থানীয় যুবলীগের কথিত বড় ভাইদের ছত্রছায়ায় তুচ্ছ ঘটনা নিয়েও সশস্ত্র হামলা-হাঙ্গামায় জড়ায়। এসব কিশোর গ্যং ও কথিত যুবলীগের নিয়ন্ত্রণ করে এলাকার শ্রমিক লীগের নামধারী এক বিতর্কিত ব্যাক্তি।

জানতে চাইলে হাটহাজারী মডেল থানার এস আই আনিসশনিবার সন্ধ্যায় এ প্রতিবেদককে আদর্শগ্রামে ঘটনার সত্যতার স্বীকার করে বলেন, এ ঘটনায় দুই পক্ষের দুটি লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও তিনি জানান।
 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *