চট্টগ্রাম, , শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২

Alauddin Lohagara

নগরীতে  ছিনতাকারী চক্রের চার সদস্যকে আটক করেছে  গোয়েন্দা পুলিশ, অস্ত্র, নগদ টাকা ও একটি সিএনজি উদ্ধার

প্রকাশ: ২০১৮-০৩-১৫ ১৩:৪২:৫৮ || আপডেট: ২০১৮-০৩-১৫ ১৩:৪২:৫৮

বীর কণ্ঠ ডেস্ক  :

নগরীতে অটোরিক্সায় ছিনতাকারী চক্রের চার সদস্যকে আটক করেছে নগর গোয়েন্দা পুলিশ। উদ্ধার করা হয়েছে অস্ত্র, নগদ টাকা ও একটি সিএনজি চালিত অটোরিক্সা। বুধবার বিকেলে নগরীর সিআরবি এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়।

আটককৃতরা হলো- মো.মাকসুদুর রহমান ‍টিপু(৩০), মো.ওয়াহিদুল ইসলাম(২৮), মো.জয়নাল(২৮) ও মো.ইকবাল হোসেন(২৪)। আটকের পর পুলিশের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে স্বীকার করেছে, নগরীর বিভিন্ন স্থানে সিএনজি অটোরিক্সায় ছিনতাই করে তারা। তাদের মূল টার্গেট ব্যাংক থেকে টাকা নিয়ে বের হওয়া ব্যক্তিরা। এজন্য তারা আগে থেকেই ব্যাংকের আশপাশে ওঁৎ পাতেন।

নগর পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিবি-বন্দর) মো.শহিদুল্লাহ জানান, বুধবার বেলা পৌনে তিনটায় নগরীর জুবলী রোডের ঢাকা ব্যাংক থেকে ১ লাখ ৭০ হাজার টাকা নিয়ে বের হন বেসরকারি একটি প্রতিষ্ঠানের চাকরিজীবী মিঠু ঘোষ।

ব্যাংক থেকে বের হয়ে রিকসা যোগে যাওয়ার সময় নগরীর নুর আহম্মদ সড়কের নেভাল ক্রসিং এলাকায় তাকে রিকসা থেকে টেনে সিএনজি টেক্সিতে তুলে নেয় ছিনতাইকারী দল। এসময় মিঠু চিৎকার করলে সেখানে টহলের দায়িত্বে থাকা ডিবি পুলিশের একটি দল তাদের ধাওয়া দেয়। পরে সিআরবি রেলওয়ে হাসপাতালের সামনে গিয়ে তাদের আটক করে।

এসময় ছিনতাইয়ের কাজে ব্যবহৃত অটোরিক্সায় একটি বন্দুক, চার রাউন্ড কার্তুজ, দুটি চাপাতি, একটি চাকু, ছিনতাইকৃত ২ লাখ নগদ টাকা পাওয়া যায়। একই স্থান থেকে মঙ্গলবার আরেক ব্যক্তির কাছ থেকে ৩০ হাজার টাকা ছিনতাই করে।

মিঠু ঘোষ বাংলানিউজকে বলেন, আমাদের ১০ জনের একটি সমিতি ছিল। সেখানে প্রতি মাসে টাকা করে রাখতাম। মেয়াদ শেষ হওয়ায় বুধবার সব টাকা তুলে নিয়ে যাচ্ছিলাম। রিকসায় করে যাওয়ার সময় নেভাল ক্রসিং এলাকায় পৌঁছলে ছিনতাইকারীরা আমাকে টেনে সিএনজিতে তুলে নেয়। এসময় আমি চিৎকার দিলে ডিবি পুলিশের একটি দল সিএনজিসহ আটক করে।  – বাংলানিউজ

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *