চট্টগ্রাম, , শনিবার, ১১ জুলাই ২০২০

admin

রাঙ্গুনিয়ায় বিদেশ ফেরত ৪ জন হোম কোয়ারেন্টিনে

প্রকাশ: ২০২০-০৩-১৬ ২২:৫৫:২৮ || আপডেট: ২০২০-০৩-১৬ ২২:৫৫:৩৫

আব্বাস হোসাইন আফতাব, রাঙ্গুনিয়া :
চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় বিদেশ ফেরত ৩ জন হোম কোয়ারেন্টিনে রয়েছেন। তাঁরা সম্প্রতি আবুদাবি ও ওমান থেকে এসেছেন। তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ও উপজেলা করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব রাজীব পালিত।

আজ সোমবার (১৬ মার্চ) দুপুর ১ টা পর্যন্ত টিকেট কাউন্টারে ৪০৫ জন রোগী বহির্বিভাগে চিকিৎসা নিতে টিকেট সংগ্রহ করেন। এর মধ্যে দুইশতের অধিক রোগী জ্বর, সর্দি,কাশি নিয়ে হাসপাতালে আসেন।


হাসপাতাল ঘুরে দেখা যায়, ৩য় তলায় আইসোলেশন ইউনিট তালাবদ্ধ। নিচতলায় জ্বর, সর্দি, কাশি সংক্রান্ত রোগের জন্য আলাদা কক্ষ খোলা হয়েছে।

ওই কক্ষে দায়িত্বে থাকা চিকিৎসক রফিকুল ইসলাম বলেন, “ আজ সোমবার (১৬ মার্চ) দুপুর পর্যন্ত একজন ওমান ফেরত রোগী ছাড়া এই কক্ষে আর কেউ আসেননি। তিনি এক মাস আগে ওমান থেকে এসেছেন। লোকটি সম্পূর্ন সুস্থ। তাঁর করোনা ভাইরাসের কোনো উপসর্গ নেই। ”


করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে কার্যক্রম সম্পর্কে জানতে চাইলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ও উপজেলা করোনা ভাইরাস প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব রাজীব পালিত প্রথম আলোকে বলেন, “ রাঙ্গুনিয়া স্বাস্থ্য কেন্দ্রে জ্বর নিয়ে আসা ৩ জনকে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়েছে।

এদের একজন আবুদাবি থেকে এসেছেন। পৌরসভার ঘাটচেক এলাকার বাসিন্দা তিনি । তাঁকে ৪ দিন আগে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়। পোমরা ইউনিয়নের বাসিন্দা আবুদাবি ফেরত ব্যক্তিকে ৫ দিন আগে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়।

৩ দিন আগে আবুদাবি ফেরত পোমরা ইউনিয়নের এক শিশুকে হোম কোয়ারেন্টিনে পাঠানো হয়। সম্প্রতি শিশুটি তাঁর মা-বাবার সাথে আবুদাবি থেকে আসে। তবে তাঁর মা-বাবার কোনো উপসর্গ নেই।”


সন্দেহজনক কোনো ব্যক্তিকে বাধ্য করে কোয়ারেন্টিনে কিংবা হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে কিনা জানতে চাইলে রাঙ্গুনিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ সাইফুল ইসলাম বলেন, “ বাধ্য করে এখনো কাউকে পাঠানো হয়নি। তবে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে যদি প্রয়োজন হয় করা হবে।”


জানতে চাইলে উপজেলা প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা(ইউএনও) মো. মাসুদুর রহমান বলেন, “ হাসপাতালে আইসোলেশন কক্ষ খোলা হয়েছে। প্রতিরোধ কমিটি প্রস্তুত রয়েছে। পরিস্থিতি বুঝে প্রয়োজনে উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে আশেপাশে একটি স্কুলকে কোয়ারেন্টিন ঘোষনা করা হবে। ”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *