চট্টগ্রাম, , সোমবার, ২৫ জানুয়ারী ২০২১

admin

নিউইয়র্কে একই দিনে করোনায় সন্দ্বীপ প্রবাসী পিতা পুত্রের মৃত্যু

প্রকাশ: ২০২০-১২-২০ ১৩:০২:৪৪ || আপডেট: ২০২০-১২-২০ ১৩:০২:৪৯

ডেস্ক রিপোর্ট|
যুক্তরাষ্ট্রে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মাত্র তিন ঘণ্টার ব্যবধানে যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী বাংলাদেশি বাবা ও ছেলের মৃত্যু হয়েছে। 

নিউইয়র্কে স্থানীয় সময় শনিবার সকালে ইঞ্জিনিয়ার খাইরুজ্জামান এবং তার ছেলে আবুল বাশার পান্না মারা যান।  

তাদের গ্রামের বাড়ি চট্টগ্রামের সন্দ্বীপে। তারা নিউইয়র্কের ব্রুকলিনে বসবাস করতেন। বিশ্বে করোনার সংক্রমণ ও মৃত্যুতে শীর্ষে রয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। এর মধ্যে নিউইয়র্কের অবস্থা সবচেয়ে বেশি নাজুক। 


নিউইয়র্কসহ যুক্তরাষ্ট্রজুড়ে আবারও করোনাভাইরাসের বিস্তার আশঙ্কাজনকভাবে বেড়েছে। বাবা-ছেলের মৃত্যুতে নিউইয়র্কের বাংলাদেশ কমিউনিটিতে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

বাবা-ছেলেসহ গত এক মাসে নিউইয়র্কে সাতজন বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে বলে জানান তিনি।

অপর পাঁচজন হলেন- আবাসন ব্যবসায়ী গোলাম রহমান সেলিম (৪৬), চট্টগ্রাম কলেজের ইংরেজি বিভাগের সাবেক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ (৭৩), এলমহার্স্টের বাসিন্দা শেফালি বেগম (৫৫), চট্টগ্রাম সমিতির সভাপতি আবদুল হাই জিয়া (৫৫), লং আইল্যান্ড হসপিটালের বিশেষজ্ঞ ডাক্তার তৌফিকুল ইসলাম (৬২) (প্যাথলজিষ্ট)।

গত ১৩ ডিসেম্বর করোনায় মারা যান লং আইল্যান্ডের নর্থ শোর এলএইজের প্যাথোলোজিক্যাল বিভাগের ভাইস চেয়ারপার্সন ডা. তৌফিকুল ইসলাম (৬১)। নিউইয়র্কে বাংলাদেশি চিকিৎসকদের মধ্যে তিনি উচ্চপদে কাজ করতেন।

জন হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয় (জেএইচইউ) থেকে প্রকাশিত সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, শনিবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বব্যাপী কভিড-১৯ আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু সংখ্যা পৌঁছেছে ১৬ লাখ ৭৪ হাজার ৬০ জনে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *